সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রীর ভগ্নিপতি আমানত উল্যাহর ইন্তেকালে তথ্যমন্ত্রীর শোক


Published: 2020-11-12 23:04:14 BdST, Updated: 2020-12-04 07:29:32 BdST

 

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রীর ভগ্নিপতি আমানত উল্যাহর ইন্তেকালে তথ্যমন্ত্রীর শোক

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ নভেম্বর ২০২০:

নোয়াখালীর কৃতি সন্তান সাবেক ডিভিশনাল ইন্সপেক্টর অভ রেজিস্ট্রেশন এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের ভগ্নিপতি মো. আমানত উল্যাহ'র ইন্তেকালে গভীর শোক ও দু:খপ্রকাশ করেছেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর একটি হাসপাতালে ৭৩ বছর বয়সে তার ইন্তেকালের সংবাদে (ইন্নালিল্লাহি........রাজেউন) তথ্যমন্ত্রী প্রয়াতের আত্মার শান্তি কামনা করেন ও শোকাহত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান। মৃত্যুকালে আমানত উল্যাহ স্ত্রী তাহেরা বেগম, চার ছেলে এবং তিন মেয়ে রেখে গেছেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি লাভের পর কোম্পানীগঞ্জের চৌধুরীহাট বি.জামান জুনিয়র হাই স্কুলে প্রধান শিক্ষক হিসেবে কর্মজীবন শুরু করেন কোম্পানীগঞ্জের মেহেরুন্নেছা গ্রামে জন্মগ্রহণকারী আমানত উল্যাহ। পরে ১৯৬৯ সালে ইস্ট-পাকিস্তান সিভিল সার্ভিস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে সাব-রেজিস্ট্রার পদে যোগদান করেন। জেলা রেজিস্ট্রার হিসেবে তিনি ভোলা, নোয়াখালী ও লক্ষ্মীপুর জেলায় দায়িত্ব পালন শেষে ডিভিশনাল ইন্সপেক্টর অভ রেজিস্ট্রেশন হিসেবে অবসর গ্রহণ করেন।

দেশের বিভিন্ন স্থানে তিনি দক্ষতা ও নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালনকারী মরহুম আমানত উল্যাহ ছিলেন একজন শিক্ষানুরাগী ব্যক্তিত্ব। চাকুরির সুবাদে তিনি ফটিকছড়ি কলেজ, ফটিকছড়ি গার্লস জুনিয়র হাই স্কুল, ফটিকছড়ি নর্থ দরুম প্রাইমারি স্কুল প্রতিষ্ঠা করেন। এছাড়া কোম্পানীগঞ্জে চৌধুরীহাট কলেজও তার উদ্যোগে প্রতিষ্ঠিত হয়। কোম্পানীগঞ্জের মেহেরুন্নেছা স্কুলকে মাধ্যমিক পর্যায়ে উন্নীত করতে তিনি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। শিক্ষা বিস্তারের পাশাপাশি মরহুম আমানত উল্যাহ সমাজসেবায়ও অবদান রেখেছেন।
মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী তাহেরা বেগম ছাড়াও চার ছেলে এবং তিন মেয়ে রেখে যান। তার সন্তানরা নিজ নিজ ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত। তার ছেলেদের মধ্যে ড. মামুনুর রশিদ দারুস সালাম ইউনিভার্সিটি, ব্রুনাই-এ অধ্যাপনায় নিয়োজিত। ব্যক্তিজীবনে মরহুম আমানত উল্যাহ ছিলেন একজন বন্ধুবৎসল, ন্যায়পরায়ণ ও পরোপকারী ব্যক্তিত্ব।
শুক্রবার কোম্পানীগঞ্জের নিজবাড়িতে সকাল নয়টায় নামাজে জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করার কথা পারিবারিক সূত্রে জানানো হয়েছে।

স্বাক্ষরিত/-
মীর আকরাম উদ্দীন আহম্মদ
পরিচালক-জনসংযোগ
০১৭৬৩-৭৭০২০৭

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

সম্পাদক: মুহাম্মদ মাহবুবুর রহমান পলাশ

যোগাযোগ: গুলিস্তান শপিং কমপ্লেক্স, রুম নং-১০০, ঢাকা। মোবাইল: ০১৭৪০-৫৯৯৯৮৮. E-mail: odhikarpatra@gmail.com

সম্পাদক: মুহাম্মদ মাহবুবুর রহমান পলাশ

যোগাযোগ: গুলিস্তান শপিং কমপ্লেক্স, রুম নং-১০০, ঢাকা। মোবাইল: ০১৭৪০-৫৯৯৯৮৮. E-mail: odhikarpatra@gmail.com


Developed by: EASTERN IT