odhikarpatra@gmail.com ঢাকা | মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

বেড়েই চলছে ডলারের দাম

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত: ৯ মে ২০২২ ১৩:২৫

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ৯ মে ২০২২ ১৩:২৫

দেশে প্রতিনিয়তই ডলারের দাম হু হু করে বাড়ছে। খোলা বাজার ও নগদ মূল্যে ডলার ৯১ টাকা ৭০ পয়সা থেকে ৯৩ টাকা পর্যন্ত কেনাবেচা হচ্ছে। এতে বিপাকে পড়েছেন বিদেশগামীরা।

সংশ্লিষ্টদের মতে, অস্বাভাবিক আমদানি ব্যয়ের চাপের পাশাপাশি বিদেশেযাত্রীদের সংখ্যাও বেড়েছে। এতে করে খোলা বাজারে ডলারের যোগান ও চাহিদায় বড় ধরনের অসামঞ্জস্য তৈরি হয়েছে।

সর্বশেষ কেন্দ্রীয় ব্যাংকের মুদ্রাবাজারে প্রতি ডলারের বিনিময় মূল্য দাঁড়ায় ৮৬ টাকা ৪৫ পয়সা। আর বেসরকারি ব্যাংকগুলোর মধ্যে এ হার ব্যাংকভেদে ৮৫ টাকা ৫০ পয়সায় কেনা ও বিক্রি ৮৬ টাকা ৫০ পয়সা।

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘ সময় মানুষ দেশের বাইরে যাননি। বর্তমানে করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ায় অনেক মানুষ চিকিৎসার প্রয়োজনে বিদেশ যাচ্ছেন। অনেকেই আবার দেশের বাইরে ঘুরতেও যাচ্ছেন। এসব কারণে ডলারের চাহিদা বেড়েছে অনেক। চাহিদার অনুপাতে সরবরাহ কম থাকায় দামও বেড়ে গেছে।

তবে খোলা বাজারে সবচেয়ে বেশি বাড়ে রমজান মাসে। অনেকে ওমরাহ করতে গিয়েছিলেন, আর সেই সুযোগ নিয়েছিলেন খোলা বাজারের বিক্রেতারা।

ব্যাংকখাত সংশ্লিষ্টরা বলছেন, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার পর থেকেই পর্যটনখাত চাঙ্গা হতে শুরু করেছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সীমান্ত খুলেছে। মানুষের পেশাগত কাজ, শিক্ষা, চিকিৎসা ও কেনাকাটার জন্য বিভিন্ন দেশে যাতায়াত করছেন। এর প্রভাব পড়ছে দেশের খোলা বাজারের ডলারের দামে।

আর এক্সচেঞ্জ হাউস ও খোলা বাজারের ব্যবসায়ীরা বলছেন, মানুষ এখন ডলার বিক্রি করতে আসছেন না। যারা আসছেন তারা শুধু কেনার জন্যই। এই কারণে দাম বাড়ছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক খোলা বাজারের এক ডলার বিক্রেতা জানান, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার পর থেকেই ডলারের ক্রেতা বেড়েছে, বিক্রেতা বাড়েনি। এখন সবাই ডলার কিনতে আসছেন, বিক্রি করতে আসছেন না। স্বাভাবিকভাবেই ক্রেতা বেশি হলে সংকট হয়, তাই দামও বেড়েছে কিছুটা।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: