ঢাকা | সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ফেইসবুক লাইভে মিথ্যা মন্তব্য ও জমি দখলের অভিযোগে মাহিয়া মাহিসহ ১০ জনকে গ্রেফতার

আহসানুল ইসলাম আমিন | প্রকাশিত: ১৮ মার্চ ২০২৩ ২২:৫৩

আহসানুল ইসলাম আমিন
প্রকাশিত: ১৮ মার্চ ২০২৩ ২২:৫৩

প্রধান প্রতিবেদক:

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের ব্যাপারে ফেইসবুক লাইভে মিথ্যা মন্তব্য এবং স্বামী রকিব সরকারের বিরুদ্ধে জমি দখলের অভিযোগে চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহিসহ ১০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আজ শনিবার (১৮ মার্চ) দুপুরে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ (জিএমপি) কার্যালয়ে সংবাদ  সম্মেলনে পুলিশ কমিশনার মোল্যা নজরুল ইসলাম এ কথা জানান।

গ্রেফতারদের মধ্যে পুলিশের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় মাহিকে বেলা পৌনে ১২টার দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে গ্রেফতার করা হয়। পরে গাজীপুর মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করলে আদালতের বিচারক মো. ইকবাল হোসেন তাকে গাজীপুর জেলা কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।  অন্যদিকে কোটি টাকা মূল্যের জমি দখলের জন্য রকিব সরকার ও মাহিকে হুকুমের আসামি করে ব্যবসায়ী ইসমাইল হোসেন মামলা করেন। ওই মামলায় শুক্রবার রাতে আরও নয়জনকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন- বাসন থানার তেলিপাড়া এলাকার মোতালিব হোসেনের ছেলে সাজ্জাদ হোসেন সোহাগ (৩৮), পালের পাড়া এলাকার রজব আলীর ছেলে আশিকুর রহমান (৩২), বাড়ীয়ালী এলাকার ইয়ার উদ্দিনের ছেলে ফাহিম হোসেন হৃদয় (২২), গাজীপুর মেট্রো সদর থানার শিমুলতলী এলাকার আব্দুস সামাদের ছেলে জুয়েল রহমান (২৫), টাঙ্গাইলের সখিপুর উপজেলার ইদারজানি গ্রামের আব্দুল জব্বারের ছেলে জমশের আলী (৪৪), চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উপজেলার সাতকানিয় গ্রামের মৃত পেটাল আলীর ছেলে মোস্তাক আহমেদ (২২), গাজীপুর মেট্রো সদর থানার নাগা এলাকার খালিদ সাইফুল্লাহ জুলহাস (৩০), গাজীপুর মেট্রো গাছা থানার শরিফপুর এলাকার আবুল হোসেন মন্ডলের ছেলে সুজন মন্ডল (৩৪) ও নেত্রকোনার আটাপাড়া উপজেলার আড়াগাঁও গ্রামের আবুল কাশেমের ছেলে মাহবুব হাসান সাব্বিরকে (১৮)। তাদের শনিবার দুপুরে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

কমিশনার বলেন, ‘মাহির স্বামী রকিবের বিরুদ্ধে এর আগে অস্ত্র, হত্যা ও ধর্ষণের তিনটি মামলা রয়েছে। ওই মামলাগুলোতে কেউ সাক্ষী দেয়নি। কিন্তু ঘটনা সত্য ছিল। তবে এখন মামলাগুলো পুনরায় তদন্ত ও সাক্ষ্যপ্রমাণ গ্রহণের সুযোগ রয়েছে। এছাড়া রকিবের বিরুদ্ধে প্রতিনিয়িত আমাদের কাছে বিভিন্ন অভিযোগ আসছে। তার আরেক ভাই গাজীপুরের পরিবহন সেক্টরে চাঁদাবাজি ও দখলের ঘটনা ঘটিয়ে আসছে। গাজীপুরবাসীর দাবির পরিপ্রেক্ষিতে বিভিন্ন মহাসড়ক থেকে অননুমোদিত ও অবৈধ যান চলাচল বন্ধ করেছে পুলিশ। এতে সড়কে স্বাভাবিক গতি ফিরে এসেছে।’

মাহি স্বামী রকিব সরকারের সঙ্গে ওমরাহ হজ পালনের জন্য সৌদি আরব গিয়েছিলেন। মাহির সঙ্গে দেশে ফেরেননি রকিব। তিনি গাজীপুর মহানগরীর বাসন থানা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

শুক্রবার (১৭ মার্চ) রাতে মাহি ও তার স্বামীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ। বাসন থানার উপপরিদর্শক (এসআই) রোকন মিয়া বাদী হয়ে এ মামলা করেন। এ ছাড়া জমি দখলের অভিযোগে তাদের বিরুদ্ধে হুকুমের আসামি করে আরও একটি মামলা করেন স্থানীয় বাসিন্দা ইসমাইল হোসেন।

এর আগে শুক্রবার ভোরে স্বামীর সঙ্গে ওমরাহ পালনরত মাহি সৌদি আরবের মক্কা শহর থেকে ফেসবুক লাইভে রকিবের গাড়ির শো-রুম ভাঙচুর ও হামলার অভিযোগ করেন। এ সময় মাহি দাবি করে বলেন, ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজের পূর্ব পাশে ‘সনিরাজ কার প্যালেস’ নামে তার স্বামীর একটি গাড়ির শোরুম রয়েছে। সেখানে দুর্বৃত্তরা হামলা করেছে। তারা শোরুমের গেট ভেঙে ভেতরে ঢুকে আসবাব, দরজা-জানালা, টেবিল-চেয়ার ভাঙচুর করেছে। শোরুমের সাইনবোর্ড খুলে ফেলেছে। অফিসকক্ষ তছনছ করে টাকাপয়সা লুট করে নিয়ে গেছে।

ইসমাইল হোসেন ওরফে লাদেন ও মামুন সরকার নামে দুজনের নেতৃত্বে ওই হামলা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ করেন মাহি। এ সময় ফেসবুকে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের বিরুদ্ধে ‘ঘুষ’ নেওয়ার অভিযোগ তোলেন তিনি। মাহির ফেসবুক লাইভের পর সংবাদ সম্মেলন করেন স্থানীয় বাসিন্দা ইসমাইল হোসেন। তিনি সংবাদ সম্মেলনে পাল্টা অভিযোগ তুলে বলেন, রকিব তার প্রায় সোয়া ১১ শতাংশ জমি দখল করে গাড়ির শো-রুম করেছেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী থেকে শুরু করে সরকারের বিভিন্ন দফতরে তিনি এ বিষয়ে অভিযোগ দিয়েছেন।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: